রিফাত বিন সালাম রুপম

রিফাত বিন সালাম রুপম

অনেক দিন পরের কবিতা

আজিম খান

প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ০৭, ২০১৮

অনেক দিন পরের কবিতা

অংশ: ২

আমি তো সকল দুয়ার খোলাই রেখেছি,
অনন্ত প্রেয়সীর প্রতিমূর্তি আমার
আমাকে চাওয়ার প্রথম অভিব্যক্তি দেখেছি তোর চোখে
হয়ত বা ধাঁধার প্রতিচ্ছবি এঁকেছিস সম্মুখে আমার।

তবুও যদি কখনো আসবার ইচ্ছা হয়
তবে চলে আসিস।

আমার সঙ্গে এলে-
আমাদের দু`পা হবে পৃথিবীর সবচেয়ে আরামদায়ক দ্বিচক্র যান ,
দূরান্তে হেঁটে যাব দু`জন গোধূলির পথে ,
মোটর বাইক অথবা মার্সিডিজের প্রয়োজনটাই দেব ফুরিয়ে ।
ভাবান্বিত হবি এর চেয়ে উপযুক্ত ভ্রমণ বাহন আর কী হতে পারে?

আমার সঙ্গে এলে
প্রকৃতিকে করে দেব তোর প্রকৃত প্রসাধনী
বিস্মিত হবি সৌন্দর্য চর্চার স্বরূপ দেখে।

আমার সঙ্গে এলে
অনিন্দ্য শব্দরাশি আর প্রাঞ্জল উপমারা করে দেবে
তোর সমস্ত গহনার কারুকাজ
কবিতার সুষমারা আর স্বপ্ন দেখার স্বপ্নরা পূরণ করে দেবে তোর শোভিত অলংকারের শূন্যভাঁজ।
অবাক হবি, হাতে-গলায়-শরীরে এ কী সৌন্দর্য উপচে পড়ে!

অনন্ত প্রেয়সী আমার,
আমি তো পুরোটা হৃদয় বন্ধক রেখেছি তোর হৃদয়ের কাছে,
সেদিন আমাকে পাওয়ার প্রথম অভিলাষ ফুটে উঠেছিল তোর মুখে
হয়তো বা মরিচিকার প্রতিভাস সম্মুখে মেলেছিস আমার।
তবুও যদি কখনো আসবার ইচ্ছা হয়, তবে চলে আসিস।

আমার সঙ্গে এলে
সংস্কৃতির ও-পিঠে দেখাবো তোকে আরেক সংস্কৃতি
আশ্চর্য হবি, এর বিশুদ্ধতা ও মৌলিকত্ব দেখে।

আমার সঙ্গে এলে
জীবনবোধের ধারণাটাই তোর আমূল পাল্টে দেব।
বুঝে যাবি, যাপিত জীবনটাই ভুল
এ জীবনের পাশেই থাকে আরেক জীবন
আশ্চর্য হবি সেই জীবনের গভীরতা দেখে।

আমার সঙ্গে এলে
সৌন্দর্য উপভোগের ধারণাটাই তোর বদলে দেব
আবহমান সৌন্দর্য-বন্দিদশা থেকে মুক্ত করে তোকে
শিশিরের জ্যোছনায় ভেজাব
ঘাসফুলের সৌন্দর্যে বিভোর করাব
দূর মহাকাশের সৌন্দর্য-রহস্য উপভোগের মন্ত্র শেখাবো
বুঝিয়ে দেব, এ গ্রহের দরিদ্র-সংকটগ্রস্ত মানুষেরাই পৃথিবীর সকল সৌন্দর্যের আধার
জানি, পৃথিবীর সমস্ত ভালোবাসাই এখন বৃত্তায়িত পুঁজির দৌরাত্ম্যে
সেখানে আমার এ ভালোবাসা ম্লান
হৃদয়ে যদিও অপার তৃষ্ণা জাগে...

তবু তুই অনেক দিন পরের কবিতা আমার
যেমন ছিলি অনেক দিন আগে...

ধারাবাহিক