অভিনেতা ও নির্মাতা হুমায়ূন সাধু লাইফসাপোর্টে

ছাড়পত্র ডেস্ক

প্রকাশিত : অক্টোবর ২২, ২০১৯

লাইফসাপোর্টে রাখা হয়েছে নির্মাতা, অভিনেতা ও লেখক হুমায়ূন সাধুকে। তার অবস্থা সংকটাপন্ন। তার দুবার ব্রেনস্ট্রোক হয়েছে।

রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে নিউরোলজি বিভাগের ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) সাধুকে রাখা হয়েছে। তিনি ভারতীয় চিকিৎসক কৃষ্ণা প্রভুর তত্ত্বাবধানে রয়েছেন।

হুমায়ূন সাধুর সঙ্গে হাসপাতালে অবস্থান করছেন তার ঘনিষ্ঠজন ও নাট্যনির্মাতা আশফাক নিপুণ। তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, “হুমায়ূনকে লাইফসাপোর্টে রাখা হয়েছে। চিকিৎসকরা তাকে ২৪ ঘণ্টার পর্যবেক্ষণে রেখেছেন। তাই আমরাও অপেক্ষা করছি। সবার কাছে সাধুর জন্য দোয়া চাইছি।”

হুমায়ূন সাধুর প্রথম ব্রেনস্ট্রোক হয় ২৯ সেপ্টেম্বর। এরপর তাকে চট্টগ্রামের পাঁচলাইশের পার্কভিউ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে তাকে ১৩ অক্টোবর রাজধানীর বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে স্থানান্তর করে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছিল।

মঙ্গলবার (২২ অক্টোবর) তাকে বিদেশে নিয়ে অস্ত্রোপচারের প্রস্তুতিও নেয়া হয়েছিল। কিন্তু ২০ অক্টোবর দিবাগত রাত ২টার দিকে হঠাৎ সাধুর দ্বিতীয় ব্রেনস্ট্রোক হয়। এর পরই তাকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে লাইফসাপোর্ট রাখা হয়।

উল্লেখ্য, মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর হাত ধরে শোবিজে হুমায়ূন সাধুর পথচলা শুরু। অভিনয় দিয়ে দর্শকদের কাছে পরিচিতি পেয়েছেন, নাটক নির্মাণ করেও প্রশংসিত হয়েছেন তিনি। ‘মেড ইন বাংলাদেশ’ সিনেমা দিয়ে অভিনয় জীবন শুরু হয় তার।

লেখালেখিতে সাধুর ছিল চমৎকার হাত। ঝরঝরে গদ্যভাষায় তিনি লিখে যেতেন নানা টুকরো টুকরো দৃশ্যের ছবি। ২০১৯ সালের বইমেলায় প্রকাশনা সংস্থা ‘বৈভব’ প্রকাশ পায় তার উপন্যাস ‘ননাই’। যা এরই মধ্যে পাঠক নন্দিত।

ধারাবাহিক